ভ্যালেনটাইন ডে পালন করতে চাইলে দল থেকে বেরিয়ে যাও

ভারতের পশ্চিমবঙ্গের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ছাত্র-যুবকদের উদ্দেশে বলেছেন, ‘ভ্যালেনটাইন ডে পালন করতে চাইলে দল থেকে বেরিয়ে যাও।’ রোববার সরশুনা কলেজ মাঠে আয়োজিত বেহালা পশ্চিম বিধানসভা কেন্দ্রের বুথ কর্মী সম্মেলন শেষে এ কথা বলেন তিনি।

সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের মহাসিচব পার্থ চট্টোপাধ্যায় ছাত্র-যুব সম্মেলনের ব্যাপারে গুরুত্বপূর্ণ দিকনির্দেশনা দেওয়ার এক পর্যায়ে তিনি বলেন, ‘সব সম্মেলন হয়ে গেছে, শুধু ছাত্র-যুবরটা এখনো বাকি।’ স্থানীয় ছাত্র-যুবনেতা অর্ণব বন্দ্যোপাধ্যায়কে দায়িত্ব দেওয়া হয় সম্মেলন করার।

সম্মেলনের তারিখের ব্যাপারে মঞ্চের সামনের সারির কর্মীরা ১২-১৩ ফেব্রুয়ারির প্রস্তাব করেন। পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, ১২ তারিখ সম্মেলনের ব্যাপারে রাজি হয়ে যান। তখনই কর্মীদের মধ্যে বিশষ ধরনের গুঞ্জন শোনা যেতে থাকে। কেউ কেউ বলে উঠে, ১২ তারিখ তো শুক্রবার। তখন পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, তাহলে ১৩ তারিখ সম্মেলন হবে, নাকি ওই দিনও কিছু রয়েছে?’

পার্থের এমন টীপ্পনীর জবাবে এক কর্মী বলেন, দাদা, ‘১৩-১৪ তারিখ কাউকে পাওয়া যাবে না। ১৪ তারিখ তো ভ্যালেনটাইনস ডে।’


মুখের ওপর এমন জবাব শুনে অসন্তুষ্টির ছাপ ফুটে উঠে প্রবীণ এই নেতার মুখে। তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দেন, ‘ভ্যালেনটাইন ডে পালন করতে চাইলে দল থেকে বেরিয়ে যাও।’

নেতার মুখে এমন ধমক শুনে ভয় পাওয়া তো দূরের কথা উল্টো হাসির রোল উঠে উপস্থিত কর্মীদের মধ্যে। এ দৃশ্য দেখে পার্থ আরো ধমকের সুরে বলেন, ‘রাজনীতি করবে, আবার ভ্যালেনটাইনস ডেও করবে?’ এবারও কর্মীরা হাসিতে ফেটে পড়েন। অবস্থা দেখে পার্থও বাধ্য হয়ে হেসে ফেলেন।

হাসতে হাসতেই তিনি বলেন, ‘ভ্যালেনটাইনস ডে হোক। এমন অনেক ডে-ই আছে যেটা ১৩ তারিখে, ১৪ তারিখে নয়।’ হাসাহাসি শেষে ১৩ তারিখেই বেহালা পশ্চিমের ১২৫ নম্বর ওয়ার্ডে তৃণমূল ছাত্র-যুবকর্মী সম্মেলন ঠিক হয়।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*